1. admin@dainikprothomnews.com : admin :
শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ০৮:৩৩ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনামঃ
সাতক্ষীরার তালায় ধানবোঝাই ট্রাক উল্টে দুইজন নিহত সাতক্ষীরায় মানবাধিকার লঙ্ঘনকারী, দুর্নীতিগস্থ ও সাম্প্রদায়িকতা সৃষ্টিকারীদের প্রশ্রয় দেওয়া হবে না সাতক্ষীরায় চারটি অস্ত্র, ২৯ রাউন্ড গুলি ও তিনটি ম্যাগাজিন জব্দ করেছে র‌্যাব-৬ সাতক্ষীরায় তেলজাতীয় ফসল উৎপাদনে ৫ কৃষক পুরস্কৃত সাতক্ষীরায় কোন আম কবে পাড়া যাবে, জানালো জেলা প্রশাসন সাতক্ষীরার কলারোয়ায় স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে স্ত্রীর আত্মহত্যা! বাঁশেরবাদা বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচন সম্পন্ন সাতক্ষীরার আশাশুনিতে এসএসসি ২০০৮ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের মিলন মেলা অনুষ্ঠিত আজ থেকে ব্যাংক-বীমা-অফিস-আদালত খুলছে ইরানের দাবি লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত হেনেছে ক্ষেপণাস্ত্র, লুকাতে চাচ্ছে ইসরায়েল

ভোক্তার ভোগান্তি চরমে আরেক দফা দাম বাড়ল পেঁয়াজ ডাল তেল ছোলার

অর্থনীতি ডেস্ক
  • প্রকাশিত : শুক্রবার, ১১ মার্চ, ২০২২
  • ২০৫ জন দেখেছে

সরবরাহ সংকট না থাকলেও সপ্তাহের ব্যবধানে আরেক দফা বেড়েছে ভোজ্যতেল, পেঁয়াজ, মসুর ডাল ও ছোলার দাম। পাশাপাশি আটা-ময়দা, আদা-রসুন ও সব ধরনের মাংসসহ ১৬ পণ্যের মূল্য বৃদ্ধি পেয়েছে। বাজারে ক্রেতাদের গুনতে হচ্ছে বাড়তি অর্থ। এ অবস্থায় চরম বিপাকে পড়েছেন নিম্ন ও মধ্যবিত্তরা। রাজধানীর কাওরান বাজার, নয়াবাজার ও মালিবাগ কাঁচাবাজার ঘুরে ক্রেতা-বিক্রেতাদের সঙ্গে কথা বলে বৃহস্পতিবার এসব তথ্য জানা গেছে।

পণ্যের দাম বৃদ্ধির চিত্র সরকারি সংস্থা ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশের (টিসিবি) দৈনিক দ্রব্যমূল্য তালিকায় দেখা গেছে। সংস্থাটি বলছে, গত সাত দিনে পাঁচ লিটারের বোতলজাত সয়াবিন তেলের দাম ২ দশমিক ৫৩ শতাংশ বেড়েছে। খোলা পাম অয়েল প্রতি লিটারে ৩ দশমিক ২৯ শতাংশ দাম বেড়েছে। পাশাপাশি প্রতি কেজি খোলা আটা ৫ দশমিক ৬৩ শতাংশ, খোলা ময়দা ১ দশমিক শূন্য ৩ শতাংশ, মাঝারি আকারের মসুর ডাল ৪ দশমিক ৬৫ শতাংশ, ছোলা ১ দশমিক ৩৫ শতাংশ, আলু ১১ দশমিক ৭৬ শতাংশ, দেশি পেঁয়াজ ২০ শতাংশ, আমদানি করা পেঁয়াজ ১০ শতাংশ, দেশি রসুন ২২ শতাংশ, দেশি শুকনা মরিচ ৬ দশমিক শূন্য ৬ শতাংশ, আমদানি করা হলুদ ৩ শতাংশ, দেশি আদা ১৫ শতাংশ, আমদানি করা আদা ১২ দশমিক ৫০ শতাংশ, গরুর মাংস ৪ দশমিক ১০ শতাংশ, খাসির মাংস ৫ দশমিক ৮৮ শতাংশ ও দেশি মুরগির দাম ৯ দশমিক ২০ শতাংশ বেড়েছে।

রাজধানীর খুচরা বাজারের বিক্রেতারা জানান, প্রতি লিটার খোলা পাম অয়েল বিক্রি হয়েছে ১৬০ টাকা। যা সাত দিন আগে ১৫৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। পাশাপাশি সাত দিনের ব্যবধানে প্রতি কেজি খোলা আটায় ৪ টাকা বেড়ে ৪০ টাকা বিক্রি হচ্ছে। খোলা ময়দায় কেজিতে ২ টাকা বেড়ে ৫০ টাকা বিক্রি হচ্ছে। প্রতি কেজি মাঝারি আকারের মসুর ডাল ৫ টাকা বেড়ে ১১৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। প্রতি কেজি ছোলা ২ টাকা বেড়ে ৮০-৮২ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। সাত দিনের ব্যবধানে প্রতি কেজি আলু ২ টাকা বেড়ে ২৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া দেশি পেঁয়াজ কেজিতে ৫ টাকা বেড়ে ৬৫-৭০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। দেশি রসুন কেজিতে ১০ টাকা বেড়ে ৭০ টাকায় বিক্রি হয়েছে। দেশি শুকনা মরিচ কেজিপ্রতি ২০ টাকা বেড়ে ২০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

এছাড়া খুচরা বাজারে প্রতি কেজি আমদানি করা হলুদ ১০ টাকা বেড়ে ১৮০-১৯০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। দেশি আদা কেজিপ্রতি ২০ টাকা বেড়ে ১৪০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া প্রতি কেজি আমদানি করা আদা ১০ টাকা বেড়ে ১১০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। প্রতি কেজি গরুর মাংস ১০ টাকা বেড়ে ৬৪০-৬৬০ টাকা, খাসীর মাংস কেজিতে ৫০ টাকা বেড়ে ৯৫০ টাকা বিক্রি হচ্ছে। প্রতি কেজি দেশি মুরগি সাত দিনে ৫০ টাকা বেড়ে ৫০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

রাজধানীর নয়াবাজারে পণ্য কিনতে আসা মো. নাফিস বলেন, বাজারে সব ধরনের পণ্যের দাম বেড়েছে। কিনতে গেলে হাতে কোন টাকা থাকছে না। আর পণ্যও চাহিদামতো কিনতে পারছি না। ফলে কম কিনতে হচ্ছে। এমন পরিস্থিতি চলতে থাকলে এক সময় না খেয়ে থাকতে হবে।

সংবাদ টি শেয়ার করে সহযোগীতা করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2021-2024 দৈনিক প্রথম নিউজ
প্রযুক্তি সহায়তায় রি হোস্ট বিডি