1. admin@dainikprothomnews.com : admin :
শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ০৮:০৮ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনামঃ
সাতক্ষীরায় চায়ের দোকানে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে অর্ধ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি সাতক্ষীরা সদর থানা পুলিশের অভিযানে ৫ কেজি গাঁজাসহ এক মাদক ব্যবসায়ী আটক সাতক্ষীরায় শ্রদ্ধা ও ভালবাসায় আন্তজার্তিক মাতৃভাষা ও জাতীয় শহীদ দিবস পালিত সাতক্ষীরা জোন ট্যুরিস্ট পুলিশের আয়োজনে সুন্দরবন দিবস পালন সাতক্ষীরায় ডিবি পুলিশের অভিযানে ৫১৫ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেটসহ আটক ১ সাতক্ষীরায় বিশ্ব ক্যান্সার দিবস ২০২৪ শীর্ষক র‌্যালি ও আলোচনা সভা সাতক্ষীরায় ডিবি পুলিশের বিশেষ অভিযানে ৪০ বোতল ফেন্সিডিলসহ আটক ১ বাংলাদেশ থেকে চিকিৎসক-নার্স নেওয়ার ঘোষণা সৌদির শীতের রাতে সাতকানিয়া-লোহাগাড়ায় হঠাৎ বন্যা! মূল্যবৃদ্ধি ও কালো টাকার বিরুদ্ধে সোচ্চার হতে হবে

আতঙ্কে ওমিক্রোনের পরিবহন খরচ বাড়বে বলে আশঙ্কা নেপালি ব্যবসায়ীদের

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • প্রকাশিত : শুক্রবার, ২৪ ডিসেম্বর, ২০২১
  • ১৪৭ জন দেখেছে

করোনাভাইরাস মহামারী বিশ্বজুড়ে সরবরাহ শৃঙ্খলে মারাত্মক সংকট তৈরি করেছে। পণ্য পরিবহনের খরচ আকাশ ছোঁয়া হয়েছে। নেপালের মতো ক্ষুদ্র অর্থনীতির জন্য সংকট আরও তীব্র। স্থানীয় ব্যবসায়ীদের মতে, পরিবহন খরচ বেড়ে যাওয়ায় দেশে পণ্য আমদানির খরচ বেড়েছে, অন্যদিকে বিদেশি পণ্যের দাম বেড়েছে প্রায় আটগুণ।

নেপাল ফরেন ট্রেড অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি সুনীল কুমার ধানুকা (বানসাল) কাঠমান্ডু পোস্টকে বলেছেন যে মহামারীর আগে চীন থেকে নেপালে একটি ২০ ফুট কন্টেইনার পাঠাতে ১,৮০০ থেকে ২,০০০ ডলার এবং ৪০ ফুটের জন্য ২,৮০০ ডলার খরচ হয়েছে।

কিন্তু এখন চীন থেকে নেপালে একটি ২০-ফুট কন্টেইনার পাঠাতে ৬,০০০ থেকে ৬,৫০০ ডলার এবং ৪০-ফুট কন্টেইনারের জন্য $১০,০০০ থেকে ১১,৫০০ ডলার খরচ হয়৷

সুনীল বলেন, শিপিং খরচ বৃদ্ধি অবশ্যই পণ্যের দামের উপর সরাসরি প্রভাব ফেলে। তদুপরি, ডলারের মূল্য বৃদ্ধির সাথে সাথে পণ্যের দামও বাড়ে, যা পরিবহন খরচ যোগ করে। মালবাহী খরচ বৃদ্ধির মানে হল যে পণ্যের দাম ব্যবসায়ীদের জন্য কমপক্ষে ২০ থেকে ২৫ শতাংশ বেশি।

তিনি বলেন, নেপালি রুপির বিপরীতে ডলারের দাম বাড়ছে। সম্প্রতি, বিনিময় হার পৌঁছেছে ১২৩ রুপিতে।

নেপালি ব্যবসায়ী নেতা বলেন, পণ্যের দাম বৃদ্ধি এবং ডলারের মূল্য বৃদ্ধি রপ্তানিকারক ও আমদানিকারক উভয়কেই ক্ষতিগ্রস্ত করেছে। তারল্য সংকট এবং ক্রমবর্ধমান ব্যাংক সুদের হার ব্যবসায়ীদের জন্য জিনিসগুলিকে কঠিন করে তুলেছে।

নেপালের রাজস্ব বিভাগের মতে, দেশটি ২০২০-২১ অর্থবছরে ১ লক্ষ ৫৩ হাজার কোটি রুপির পন্য আমদানি করেছে, যা আগের অর্থবছরের তুলনায় রেকর্ড ২৮.৬৬ শতাংশ বেশি। রপ্তানিও বেড়েছে আগের বছরের তুলনায়, ২০২০-২১ অর্থবছরে, নেপালের পণ্য রপ্তানি ৪৪.৪৩ শতাংশ বেড়েছে এবং ১৪,১১২ কোটি টাকায় পৌঁছেছে।

তবে সমস্যা শুধু পরিবহন খরচই নয়, কন্টেইনার পেতেও ব্যবসায়ীদের ২৫ দিনের বেশি অপেক্ষা করতে হয় বলে অভিযোগ সুনীল কুমার ধানুকা।

তিনি বলেন, ভারতের মতো প্রতিবেশী দেশগুলোতে ওমিক্রন করোনাভাইরাসের বিস্তার বাড়ছে। ফলস্বরূপ, মহামারীর প্রথম এবং দ্বিতীয় তরঙ্গ হিসাবে সরবরাহ চেইন ব্যাহত হবে বলে আশা করা হচ্ছে। ইতিমধ্যে, আমরা ওমিক্রনের প্রভাব অনুভব করতে শুরু করেছি।

সংবাদ টি শেয়ার করে সহযোগীতা করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2021-2024 দৈনিক প্রথম নিউজ
প্রযুক্তি সহায়তায় রি হোস্ট বিডি