1. admin@dainikprothomnews.com : admin :
শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ০৭:২১ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনামঃ
সাতক্ষীরায় চায়ের দোকানে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে অর্ধ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি সাতক্ষীরা সদর থানা পুলিশের অভিযানে ৫ কেজি গাঁজাসহ এক মাদক ব্যবসায়ী আটক সাতক্ষীরায় শ্রদ্ধা ও ভালবাসায় আন্তজার্তিক মাতৃভাষা ও জাতীয় শহীদ দিবস পালিত সাতক্ষীরা জোন ট্যুরিস্ট পুলিশের আয়োজনে সুন্দরবন দিবস পালন সাতক্ষীরায় ডিবি পুলিশের অভিযানে ৫১৫ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেটসহ আটক ১ সাতক্ষীরায় বিশ্ব ক্যান্সার দিবস ২০২৪ শীর্ষক র‌্যালি ও আলোচনা সভা সাতক্ষীরায় ডিবি পুলিশের বিশেষ অভিযানে ৪০ বোতল ফেন্সিডিলসহ আটক ১ বাংলাদেশ থেকে চিকিৎসক-নার্স নেওয়ার ঘোষণা সৌদির শীতের রাতে সাতকানিয়া-লোহাগাড়ায় হঠাৎ বন্যা! মূল্যবৃদ্ধি ও কালো টাকার বিরুদ্ধে সোচ্চার হতে হবে

ইন্দোনেশিয়ার আর্কটিক অঞ্চলে আবারও আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
  • প্রকাশিত : বৃহস্পতিবার, ১৬ ডিসেম্বর, ২০২১
  • ২৭১ জন দেখেছে

ইন্দোনেশিয়ার পূর্ব জাভা প্রদেশের মাউন্ট সেমেরুতে আজ দুবার অগ্ন্যুৎপাত হয়েছে। এ সময় লাভা ও কালো ধোঁয়া আকাশের দিকে উঠতে দেখা যায়। ফলে আতঙ্কে পালিয়ে যেতে শুরু করেন উদ্ধারকর্মীরা। বৃহস্পতিবার (১৬ ডিসেম্বর) এনডিটিভির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার আগ্নেয়গিরি দুটিতে অগ্ন্যুৎপাত হয়। এ সময় ধোঁয়া উঠে সাড়ে চার কিলোমিটার পর্যন্ত। এ অবস্থায় উদ্ধার অভিযান স্থগিত রাখতে বাধ্য হন শ্রমিকরা।

উদ্ধারকর্মী সাইফুল হাসান বলেন, এই মুহূর্তে উদ্ধার অভিযান চালিয়ে যাওয়া খুবই কঠিন ও বিপজ্জনক। তিনি আরও জানান, বৃষ্টির কারণে গ্রামের দিকে লাভার প্রবাহ বেড়েছে। অন্য উদ্ধারকারীরা জানিয়েছেন যে কোনও হতাহতের ঘটনা ঘটেনি কারণ দিনের আগে বাসিন্দাদের সরিয়ে নেওয়া হয়েছিল।

এর আগে দেশটির সেমেরু আগ্নেয়গিরিতে অগ্ন্যুৎপাত হয়। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত ৪৮ জন নিহত হয়েছেন। আগ্নেয়গিরিটি সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে ৩,৬৭৬ মিটার উপরে অবস্থিত। মাউন্ট সেমেরু ইন্দোনেশিয়ার প্রায় ১৩০টি সক্রিয় আগ্নেয়গিরির মধ্যে একটি।

কিছুদিন আগে ইন্দোনেশিয়ায় ৭ দশমিক ৩ মাত্রার ভূমিকম্পে কেঁপে ওঠে। ভূমিকম্পের জন্য সুনামি সতর্কতা জারি করা হয়েছে। প্রশান্ত মহাসাগরীয় রিং অফ ফায়ারে অবস্থানের কারণে, ইন্দোনেশিয়া ঘন ঘন ভূমিকম্প এবং আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাতের ঝুঁকিতে রয়েছে।

২০০৪ সালে একটি পূর্ববর্তী ভূমিকম্প সুমাত্রা দ্বীপকে কাঁপিয়েছিল যখন একটি ৯.১ মাত্রার ভূমিকম্প এই অঞ্চলটিকে কেঁপে উঠেছিল। ফলে ওই এলাকায় প্রাণ হারায় ২ লক্ষ ২০ হাজার মানুষ।

২০১৬ সালে আরেকটি শক্তিশালী ভূমিকম্প লম্বোক দ্বীপে আঘাত হানে। ভূমিকম্পের কয়েক সপ্তাহ পর আরও কয়েকটি ভূমিকম্প আঘাত হানে। দ্বীপে এবং প্রতিবেশী সাম্বাতে ৫৫০ জনেরও বেশি লোক নিহত হয়েছিল।

সেই বছরের শেষের দিকে সুলাওয়েসি দ্বীপের পালু এলাকায় সুনামির পর রিখটার স্কেলে ৭.৫ মাত্রার আরেকটি শক্তিশালী ভূমিকম্প হয়। ৪,৩০০ জনের বেশি মানুষ নিহত বা নিখোঁজ হয়েছে।

সংবাদ টি শেয়ার করে সহযোগীতা করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2021-2024 দৈনিক প্রথম নিউজ
প্রযুক্তি সহায়তায় রি হোস্ট বিডি